“লাকি নন্দীগ্রামেই দাঁড়াব” তেখালির সভা থেকে ঘোষণা মুখ্যমন্ত্রীর

প্রতিফলক ডেস্কঃ সোমবার ৫ বছর পর
নন্দীগ্রামের মাটিতে পা রাখলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বক্তব্য দিচ্ছিলেন তেখালি সভামঞ্চে, আর সেই বক্তৃতার শেষ পর্যায়ে এসে কার্যত বিস্ফোরণ ঘটান তৃণমূল নেত্রী। প্রাথমিকভাবে বলতে না চাইলেও আবেগ নিয়ন্ত্রণ করতে পারলেন না তিনি, জানিয়ে দিলেন আসন্ন বিধানসভা নির্বাচনে তিনি লড়বেন নন্দীগ্রাম থেকেই। সেই সঙ্গে বললেন ভবানীপুরে অন্য ভালো প্রার্থী দেবেন।

তিনি আবার পরে বলেন “প্রয়োজনে ভবানীপুর থেকেও লড়বো, নন্দীগ্রাম আমার একটা লাকি জায়গা বারবার আসবো! এখানে কেন বলুনতো- ২০১৬ সালের ভোটের আগে আমি নন্দীগ্রাম থেকেই আমার ভোট ঘোষণা করেছিলাম। পাঁচ বছর আগে এরকমই এক জানুয়ারি মাসে নন্দীগ্রামের সভা থেকে নির্বাচনের প্রথম প্রার্থী ঘোষণা করেছিলাম। এবার ও নন্দীগ্রামে তৃণমূল জিতবে।”

হলদি নদীর পাড়ের এই জনপদে প্রথমে প্রার্থীর নাম বলতে চাইনি তিনি। তার কথায়, ‘নন্দীগ্রামের সিটে আমি কারো নাম এখন বলছি না পরে বলব। কিন্তু নন্দীগ্রাম সিটে ভালো মানুষ দেব যিনি সত্যিই আপনাদের সঙ্গে থেকে কাজ করবেন। এটা জেনারেল সিট।’

কিন্তু এখানেই থামেননি এর পরেই বলেন, “আমি যদি নন্দীগ্রামে দাঁড়ায় কেমন হয় ভাবছিলাম! একটু বললাম একটু ইচ্ছে হলো। আমার মনের জায়গা আমার ভালোবাসার জায়গা”!

তিনি আরো বলেন -“রাজ্য সভাপতি সুব্রত বক্সী কে বলছি নন্দীগ্রামে যেন আমার নামটা থাকে। ভবানীপুর কে আমি অবহেলা করছি না সেখানেও ভালো প্রার্থী দেব। ভবানীপুর আমার বড় বোন নন্দীগ্রাম আমার ছোট বোন পারলে আমি দুটো আসোনি লড়বো আমার বিবেক আমাকে জাগ্রত করল নন্দীগ্রাম থেকে।”

WhatsApp chat
error: