পুজো অনুমতি মামলায় রায় পুনর্বিবেচনার আর্জি হাইকোর্টে, আজ শুনানি

প্রতিফলক নিউজ ডেস্ক :করোনা আবহে হৈ-হুল্লোড় ভিড় ঠেলাঠেলি নয় এবারের পুজো হবে দর্শকশূন্য। নির্দিষ্ট সংখ্যক আয়োজক সদস্য ছাড়া মণ্ডপে যেতে পারবে না কেউ। করোনা পরিস্থিতিতে মানুষের স্বার্থেই এমন সিদ্ধান্ত বলে গত সোমবার দুর্গাপুজো বিষয়ক এক মামলার রায়ে এমনই মন্তব্য করেছিল কলকাতা হাইকোর্ট। রায় পুনর্বিবেচনার আর্জি জানিয়ে আদালতের দ্বারস্থ হয় পুজো কমিটি গুলির সংগঠন ‘ফোরাম ফর দুর্গোৎসব’ । আজ বুধবার এই মামলার শুনানি।

বিচারপতি সঞ্জীব বন্দ্যোপাধ্যায় এর ডিভিশন বেঞ্চে মামলার শুনানি হবে। মামলার সব পক্ষকেই নোটিশ পাঠানো হয়েছে। ফোরামের হয়ে মামলা লড়বেন বিশিষ্ট আইনজীবী তথা তৃণমূল সাংসদ কল্যাণ বন্দ্যোপাধ্যায়। সোমবার আদালতের রায় হাতে পান পুজো আয়োজকরা। কিন্তু রায় কার্যকর করতে বিভিন্ন সমস্যার সম্মুখীন হচ্ছেন বলে জানিয়েছেন ফোরম।

এ প্রসঙ্গে ‘ফোরম ফর দূর্গোৎসব’ এর সাধারণ সম্পাদক শাশ্বত বসু বলেন, আদালত 25 জনকে পূজামণ্ডপে প্রবেশ অধিকার দিয়েছে। কিন্তু 24 ঘন্টা তারা একসঙ্গে কিভাবে থাকবেন এটা জানতে চেয়েছি |তাছাড়া 10 মিটার দূরত্ব কিভাবে পালন করা হবে, গলির মধ্যে যে সমস্ত পুজো হচ্ছে তাদের প্রবেশ বা বাহির পথ একই থাকবে কিনা সেটা আমরা জানতে চেয়েছি মহামান্য আদালতের কাছে।

ফোরামের সদস্যরা বিভিন্ন সমস্যার কথা উল্লেখ করে রায় পুনর্বিবেচনার দাবি জানিয়েছেন। রিভিউ মামলার আইনজীবী কল্যাণ বন্দ্যোপাধ্যায় এ প্রসঙ্গে বলেন, সোমবারের রায়ে বহু পুজো কমিটি বিভিন্ন সমস্যায় পড়েছে। তাই রায় পুনর্বিবেচনার আর্জি জানানো হয়েছে। আদালত সেই আর্জি গ্রহণ করেছে বলেও জানান তিনি।

WhatsApp chat
error: